Sponsored Ad

সেদ্ধ ডিম না ওমলেট? কীসে পুষ্টি বেশি?



কেউ ভালবাসেন সেদ্ধ ডিম, কেউ পোচ, কেউ বা আবার ওমলেট। অতিরিক্ত ডিমপ্রেমীরা আবার অতকিছু ভাবেনই না। যে কোনও প্রকারে ডিম তাদের চাই-ই-চাই। স্বাস্থ্য সচেতনরা আবার ডিম ভাজার বদলে সেদ্ধতেই মন দেন বেশি। তবে জানেন কি পুষ্টিগুণে সেদ্ধ ও ওমলেট টেক্কা দেয় একে অপরকে? যে ভাবেই খান ডিম সব সময়ই দারুণ।
পুষ্টিগুণ
একটা গোটা সেদ্ধ ডিমে রয়েছে ৭৮ ক্যালরি, ৬.৩ গ্রাম প্রোটিন, ০.৬ গ্রাম কার্বহাইড্রেট ও ৫.৩ গ্রাম ফ্যাট। যার মধ্যে ১.৬ গ্রাম স্যাচুরেটেড ফ্যাট।
ওমলেটে রয়েছে ৯০ ক্যালরি, ৬.৮ গ্রাম ফ্যাট। স্যাচুরে়টেড ফ্যাটের পরিমাণ ২ গ্রাম।
ভিটামিন
একটা গোটা সেদ্ধ ডিমের ১৫ শতাংশ রাইবোফ্লোভিন, ১০ শতাংশ ভিটামিন বি১২ ও ১১ শতাংশ ভিটামিন। ভাজ ডিমেও ভিটামিনের পরিমাণ প্রায় একই। রাইবোফ্লোভিন রক্তকণিকা তৈরি করতে সাহায্য করে, বি১২ স্নায়ুতন্ত্র ও মস্তিষ্কের কর্মক্ষমতা নিয়নন্ত্রণ করে, ভিটামিন ডি রোগ সংক্রমণ প্রতিরোধ করে।
খনিজ
এ বার কিন্তু সেদ্ধ ডিমকে টেক্কা দিয়ে দিয়েছে ওমলেট। সেদ্ধ ডিমের থেকে ওমলেটে মিনারেলের পরিমাণ বেশি। সেদ্ধ ডিমে যেখানে ৯ শতাংশ ফসফরাস রয়েছে, ওমলেটে সেখানে ফসফরাসের পরিমাণ ১০ শতাংশ। হাড় শক্ত করতে ফসফরাস অত্যন্ত জরুরি। 
সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা

Post a Comment