ছক্কা দিয়েই শুরু মূল বিশ্বকাপ


টি-টোয়েন্টি মানেই ধুম-ধাড়াক্কা ব্যাট-বলের লড়াই। বোলার বল করবেন আর ব্যাটসম্যান একের পর এক বলকে মাঠছাড়া করবেন- এটাই তো স্বাভাবিক। কিন্তু টুর্নামেন্টের প্রথম বলেই যদি ছক্কার দেখা মেলে, তাহলে তাকে কী বলা যাবে! টুর্নামেন্টে যে ছক্কার বন্যা বয়ে যাবে, তাতে তো কোন সন্দেহ থাকার কথা নয়।

নাগপুরের বিদর্ভ স্টেডিয়ামে উদ্বোধনী ম্যাচে মুখোমুখি নিউজিল্যান্ড এবং স্বাগতিক ভারত। টস জিতে ব্যাট করতে নেমেছে নিউজিল্যান্ড। ইনিংস ওপেন করতে নামেন মার্টিন গাপটিল এবং কেনে উইলিয়ামসন। প্রথম ওভার করার জন্য ভারত অধিনায়ক বল তুলে দিলেন স্পিনার রবিচন্দ্রন অশ্বিনের হাতে। প্রথম বল মোকাবেলা করেন গাপটিল। কিউই এই মারকুটে ব্যাটসম্যান প্রথম বলেই অশ্বিনকে হাওয়ায় ভাসিয়ে দিলেন। বোলারের মাথার ওপর দিয়েই স্ট্রেইট ছক্কা। টুর্নামেন্টের প্রথম বলেই এলো ছক্কার মার! সত্যিই অসাধারণ।

তবে, নিউজিল্যান্ডের দুর্ভাগ্য। দ্বিতীয় বলেই আউট হয়ে গেলেন গাপটিল। অশ্বিনের ইনসুইং বলটি খেলতে গিয়ে পরাস্ত হন। জোরালো আবেদনে আঙ্গুল তুলে দিলেন আম্পায়ার কুমারা ধর্মসেনা। অথচ রিপ্লাইতে দেখা গেলো, এই বলে কোনভাবেই এলবিডব্লিউ হওয়ার সম্ভাবনা ছিল না। গাপটিল আউট হয়ে গেলে কলিন মুনরো মাঠে নামেন এবং নিজের দ্বিতীয় বল, ইনিংসের চতুর্থ বলে আবারও ছক্কা মারেন তিনি। অথ্যাৎ টুর্নামেন্টের প্রথম ওভারেই এলো দুটি ছক্কা।

Source : jagonews24

Post a Comment