হতাশ রজার: এই হার বড় ধাক্কাই দিয়ে গেল আমাকে


ফেডেরারের কি স্বপ্নভঙ্গ হল? নাকি পঞ্চম সেটে পেশির চোট ১২বার ফাইনালে ওঠার পথে বাধা হয়ে দাঁড়াল? সাংবাদিক সম্মেলনে প্রশ্ন উঠতেই নিজেকেই কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়ে ফেললেন ১৭টি গ্র্যান্ড স্ল্যামের মালিক!

পঞ্চম সেট শুরু হওয়ার আগে তাঁকে কোর্টেই ট্রেনার ডাকতে হল। শুক্রবার সেন্টার কোর্টে। তিনি কোর্টে পড়ে গিয়েছেন। তাঁর পায়ের পেশিতে চোট লেগেছে। তখনই হয়তো বোঝা গিয়েছিল শুক্রবার রজার ফেডেরারের নতুন এক কীর্তির সাক্ষী হয়ে থাকতে হবে উইম্বলডনকে! তাই হল শেষপর্যন্ত। 


খেলোয়াড় জীবনে প্রথমবার উইম্বলডনের শেষ চারে বিদায় নিলেন তিনি! তবু, এই গ্র্যান্ড স্ল্যামে সাতবারের চ্যাম্পিয়নের জন্য কী আকুলতা দর্শকদের! সেন্টার কোর্ট ছাড়ার সময় রজার ফেডেরারের জন্য দর্শকদের উপহার ছিল স্ট্যান্ডিং ওভেশন! সাংবাদিক সম্মেলনে ৩৪ বছরের টেিনস কিংবদন্তির গলাতেও ঝরে পড়ল হতাশা। রজার বললেন, ‘‘এই হারটা সত্যিই বড় ধাক্কা দিয়ে গেল আমাকে। খেতাবের এত কাছে এসেও পারলাম না শেষরক্ষা করতে!’’



৩ ঘণ্টা ২৫ মিনিটের যুদ্ধে রাওনিসের পক্ষে ফল ৬-৩, ৬-৭, ৪-৬, ৭-৫, ৬-৩। ফাইনালে তাঁর প্রতিপক্ষ অ্যান্ডি মারে। যিনি শুক্রবার দ্বিতীয় সেমিফাইনালে ৬-৩, ৬-৩, ৬-৩ হারালেন চেক প্রজাতন্ত্রের টমাস বার্ডিখ-কে। 



রাফায়েল নাদাল খেলেননি। নোভাক জকোভিচ তৃতীয় রাউন্ডেই বিদায় নিয়েছেন। টেনিসমহলের বিশ্বাস ছিল, এই সুযোগ নষ্ট করবেন না ফেডেরার! তাঁর ১২বার ফাইনালে ওঠাও নিশ্চিত। চ্যাম্পিয়নও হতে পারেন। ফেডেরারের কি স্বপ্নভঙ্গ হল? নাকি পঞ্চম সেটে পেশির চোট ১২বার ফাইনালে ওঠার পথে বাধা হয়ে দাঁড়াল? সাংবাদিক সম্মেলনে প্রশ্ন উঠতেই নিজেকেই কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়ে ফেললেন ১৭টি গ্র্যান্ড স্ল্যামের মালিক! ফেডেরার বলেছেন, ‘‘আমি ডাবল ফল্ট করছি? বিশ্বাস হচ্ছে না। আমার কাছে এই ব্যর্থতার কোনও ব্যাখ্যা নেই। নিজের ওপর থেকে রাগটা এখনও যায়নি।’’ কিন্তু চোটের কারণে পঞ্চম সেটে কোর্টের মধ্যে যেভাবে পড়ে গেলেন, সেটা কি নতুন কোনও আতঙ্কের বার্তা বহন করছে? রজারের মন্তব্য, ‘‘আশা করছি, নিজেকে সেভাবে আহত করিনি।’’ আরও বলেছেন, ‘‘কোর্টে অনেকবার পা পিছলে গিয়েছে। কিন্তু পড়িনি। শনিবার সকালে ঘুম থেকে ওঠার পরেই ব্যাপারটা বুঝতে পারব।’’ 



জল্পনা শুরু হয়েছে যে, ফেডেরার কি অবসর নিতে পারেন? রজার বলেছেন, ‘‘অষ্টমবার উইম্বলডন জেতার স্বপ্ন দেখেছিলাম ঠিকই, কিন্তু শুধু তার জন্যই খেলি না। টেনিসের গভীর এক মর্মার্থ রয়েছে আমার কাছে।’’



সেরিনার বার্তা, মেলবোর্নের ভুল হবে না
স্টেফি গ্রাফের ২২টি গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ের রেকর্ড স্পর্শ করার হাতছানি তাঁর সামনে। তবে সেরিনা উইলিয়ামসকে তাড়া করে বেড়াচ্ছে আট মাস আগে মেলবোর্নে হারের ছবি। শনিবার উইম্বলডনে মহিলা সিঙ্গলসের ফাইনালে ২১টি গ্র্যান্ড স্ল্যামের মালকিন সেরিনার প্রতিপক্ষ সেই অ্যাঞ্জেলিক কের্বের, যাঁর কাছে এবার খোয়াতে হয়েছে অস্ট্রেলীয় ওপেন খেতাব। শুক্রবার সেরিনাকে প্রশ্ন করা হয়েছিল, কের্বের-আতঙ্ক কতটা চাপে রাখছে? সেরিনার সাফ জবাব, ‘‘ওই হারটা অবশ্যই আমার কাছে খুব তাৎপর্যপূর্ণ। পাশাপাশি এটাও জানিয়ে রাখতে চাই যে, ওই ম্যাচে আনফোর্সড এরর বেশি ছিল। সেটা এবার থাকবে না।’’ প্রতিপক্ষ কের্বেরের প্রতিক্রিয়া, ‘‘সেরিনার বিরুদ্ধে লড়াই করাটা সমস্ত পরিস্থিতিতেই কঠিন। আমি সেরা টেনিস খেলার চেষ্টা করব।’’

সূত্রঃ এবেলা

Post a Comment